" crossorigin="anonymous"> মহান রব্বুল আলামীনের একটি নেয়ামত এই শীতকাল - এবং শীতকালে বিভিন্ন রোগ থেকে বাঁচতে এই খাবারগুলিকে অবশ্যই খাবারের তালিকায় রাখতে হবে 9 December 2023,This winter is a blessing from Almighty Allah - and these foods must be included in the diet to avoid various diseases during winter 9 December 2023. - %si

মহান রব্বুল আলামীনের একটি নেয়ামত এই শীতকাল – এবং শীতকালে বিভিন্ন রোগ থেকে বাঁচতে এই খাবারগুলিকে অবশ্যই খাবারের তালিকায় রাখতে হবে 9 December 2023,This winter is a blessing from Almighty Allah – and these foods must be included in the diet to avoid various diseases during winter 9 December 2023.

শীতের সুরুর প্রথম দিকে অল্প অল্প শীত পড়লেও এখন প্রায় শীত জেকে বসেছে । ঘুম থেকে উঠলেই দেখা যায় প্রকৃতি কুয়াশাচ্ছন্ন আর সবুজ ঘাসে জমে আছে বিন্দু বিন্দু শিশির । শুষ্ক আবহাওয়ার সঙ্গে কম তাপমাত্রার সংযোজন আর ধুলাবালির উপদ্রব, সব মিলিয়েই সৃষ্টি হয় কিছু স্বাস্থ্যগত সমস্যা । এই সমস্যা থেকে বাঁচতে শীতকালীন কিছু সবজি যা আমাদের শরীরের পক্ষে খুবই উপকারী ।

মহান রব্বুল আলামীনের একটি নেয়ামত এই শীতকাল – এবং শীতকালে বিভিন্ন রোগ থেকে বাঁচতে এই খাবারগুলিকে অবশ্যই খাবারের তালিকায় রাখতে হবে 9 December 2023

স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলুন সুস্থ থাকুন । শুধু মাছ মাংস খেলেই যে শরীর সুস্থ থাকবে এমনটা নয় । মাছ মাংস অবশ্যই খাবেন তবে এর পাশাপাশি শাকসবজিও খেতে হবে । শাকসবজি খেয়েও শরীরকে সুস্থ রাখা যায় । আর বিভিন্ন গাছ-গাছড়া ফলমূল থেকেই তো ঔষধ তৈরি হয় । রোগ হলেই যে ঔষধ খেতে হবে এমনটা নয় । অনেক সময় ঔষধের বদলে শাকসবজি ফলমূল খেয়েও রোগ ভালো করা যায় । শীতকালে এরকম নানা ধরনের সহজলভ্য সবজি বাজারে পাওয়া যায় । এসব সবজি শুধু দেহের পুষ্টি চাহিদা পূরণ করে তাই নয় বরং কিছু কিছু রোগের ঔষধ হিসেবেও কাজ করে ।

এতে অনেক খরচ ও কম হবে এবং রোগও ভালো হবে । এখন যেভাবে ডাক্তার এবং ঔষধের দাম বেড়ে গিয়েছে তাতে ডাক্তার দেখানো মুশকিল আবার ওষুধ কেনাও অনেক ব্যয়বহুল । আপনার শরীরের পর্যাপ্ত পরিমাণ ভিটামিন কমে গেলে শরীরে নানা রকম রোগের লক্ষণ দেখা দিবে । তাই প্রতিনিয়ত এই কম দামের খাবারগুলো আপনাদের খাদ্য তালিকায় রাখা উচিত । যেগুলি প্রতিনিয়ত আপনার হাতের নাগালের মধ্যেই পাবেন । দেখা যাক এই সবজিগুলো কি কি

মহান রব্বুল আলামীনের একটি নেয়ামত এই শীতকাল – এবং শীতকালে বিভিন্ন রোগ থেকে বাঁচতে এই খাবারগুলিকে অবশ্যই খাবারের তালিকায় রাখতে হবে 9 December 2023


বাঁধাকপি- এই সবজি টির দাম খুব বেশি নয় । এটি আপনি খুব কম দামেই আপনার আশেপাশের হাট বাজারেই পেয়ে যাবেন । বাঁধাকপি উচ্চ পুষ্টিগুণ সম্পন্ন, সুস্বাদু , সহজে রন্ধনযোগ্য সহজপাচ্য একটি সবজি । এতে আছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন C / E এবং সালফারের মতো খনিজ উপাদান । প্রতিদিন 3 দশমিক 5 আউন্স বাঁধাকপিতে থাকে 24 ক্যালোরি পুষ্টি । যা আপনার শরীরের পক্ষে খুবই উপকারী । বিশেষজ্ঞদের মতে লেবুর জুসের থেকে কাঁচা বাঁধাকপি তে ভিটামিন সি এর পরিমাণ অনেক বেশি থাকে । আর কাঁচা বাঁধাকপি খেলে পাকস্থলীর বর্জ্য পদার্থ দূর হয় ।

রান্না করা বাঁধাকপি হজম শক্তি বাড়িয়ে দিতে খুব উপকারী । বাঁধাকপি কোষ্ঠকাঠিন্য কমাতেও বেশ সহায়ক । কোলন ক্যান্সার ও ক্যান্সার প্রতিরোধক হিসাবে কাজ করে এই বাঁধাকপি । এই সবজি শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে দেয় । এছাড়া মানব দেহের ক্ষতিকারক ব্যাকটেরিয়াগুলিকে ধ্বংস করতে বাধা কপির গুরুত্ব অপরিসীম । আলসার নিরাময় ও দেহের রক্ত সঞ্চালন প্রক্রিয়া কে সতেজ করে । এই কারণে অন্যান্য সবজির পাশাপাশি বাঁধাকপিকে প্রতিনিয়ত খাদ্যতালিকায় রাখা উচিত ।

মহান রব্বুল আলামীনের একটি নেয়ামত এই শীতকাল – এবং শীতকালে বিভিন্ন রোগ থেকে বাঁচতে এই খাবারগুলিকে অবশ্যই খাবারের তালিকায় রাখতে হবে 9 December 2023


টমেটো – এই সবজি গোলাপি বা লাল রঙের হয়ে থাকে । টমেটো শরীরের পক্ষে খুবই উপকারী । বিশেষ করে টমেটোর চাটনি ও স্যালাড থেকে খুব ভালো লাগে । উচ্চ পুষ্টিগুণ সমৃদ্ধ এ সবজিতে লাইকোপেন নামের এক উপাদান থাকে যা বিভিন্ন ধরনের ক্যান্সার প্রতিরোধে কাজ করে । বিশেষজ্ঞদের মতে লাইকোপেন প্রস্টেট, স্তন, ফুসফুস, ও ত্বকের ক্যান্সার প্রতিরোধে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা গ্রহণ করে । টমেটো চোখের রোগের ক্ষেত্রে ভালো উপকারী । তাছাড়া টমেটো অন্যান্য ভিটামিনের সঙ্গে আছে প্রচুর পরিমাণ রিবোফ্লোবিন, যা ঘনঘন মাথা ব্যথা রোগে ওষুধের মতো কাজ করে । ওজন কমানো, জন্ডিস, হজমে গন্ডগোল, ডায়রিয়া ও রাতকানা রোগে টমেটো বেশ উপকারী ।


ঢেঁড়স- এই সবজিটির 90% আঁশে পরিপূর্ণ । মূলত এটি সবুজ রঙের হয়ে থাকে । লম্বা আকৃতির সবজি এটি । প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন ও কম মাত্রার ক্যালরি থাকে । এই সবজি রক্তের সুগারের মাত্রা কমায় । রক্তে কোলেস্টেরলের পরিমাণ কমিয়ে হৃদরোগের ঝুঁকি কমায় এই সবজি। ঢেঁড়সে ফলিক এসিড , আয়োডিন, জিংক ও প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন এ থাকে ।মূত্র তন্ত্রের অসুখ সারাতে ঢেঁড়স খুবই উপকারী । শরীরের অত্যাধিক ওজন মেদ ও ভুড়ি কমাতে এই সবজি নিয়মিত খাবার তালিকায় রাখা উচিত । নাহলে বিপদ ঘনিয়ে আসছে ।

মহান রব্বুল আলামীনের একটি নেয়ামত এই শীতকাল – এবং শীতকালে বিভিন্ন রোগ থেকে বাঁচতে এই খাবারগুলিকে অবশ্যই খাবারের তালিকায় রাখতে হবে 9 December 2023

গাজর- সবজির মধ্যে এই একটা সবজি যা সবার থেকে উপকারী । এটা গোলাপি পাখির গেরুয়া কালারের হয়ে থাকে । পুষ্টিগুণ অন্যান্য সবজির থেকে বেশি থাকাই গাজর শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে তোলে । এটি ক্যান্সারের ঝুঁকি কমায় ,শ্বাসতন্ত্রের কর্মক্ষমতা বাড়াই , হজমের শক্তি বৃদ্ধি করে, দাঁত চুল ও হাড় শক্ত করে । খুব বেশি গাজর খেলে ত্বকের উজ্জ্বলতা বেড়ে যায় ।


মুলা- এটি মূলত সাদা রঙের হয়ে থাকে । এর সবুজ রঙের পাতা শাক হিসেবে খাওয়া হয় । অতীতে এই মূলা শুধুমাত্র ওষুধ হিসাবে ব্যবহার করা হতো । মুলাই আছে উচ্চমাত্রায় সোডিয়াম, জিংক ,আয়রন, ম্যাগনেসিয়াম ক্যালসিয়াম পটাশিয়াম প্রভৃতি । মুলা হজমে খুব ভালো কাজ করে । রক্ত বিশুদ্ধকরণ ও দৃষ্টি শক্তি বৃদ্ধিতেও মোলা উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রাখে ।


ধনেপাতা – ধনেপাতা আমাদের দেশের একটি অতি পরিচিত বস্তু । বিশ্বের প্রতিটি দেশেই ধনেপাতা পাওয়া যায় । ধনে পাতায় রয়েছে নানাবিধ ঔষধি গুণ । ধনেপাতা কে বলা হয় ঔষধি পাতা । ধনেপাতায় রয়েছে ভিটামিন সি এবং ফলিক এসিড । এই ভিটামিন গুলো শরীরে পুষ্টি যোগায় তকো চুলের ক্ষয় রোধ করে মুখের ভেতরে নরম অংশ গুলোকে রক্ষা করে । মুখ গহ্বরের ক্যান্সারের বিরুদ্ধে লড়াই করে । ধনে পাতা রাতকানা রোগ থেকে মানুষকে বাঁচায় । রক্তে কোলেস্টেরলের পরিমাণ কমায় ।
এছাড়া ভিটামিন K তে ভরপুর ধনেপাতা হাড়ের ক্ষয় রোগ দূর করে শরীরকে শক্ত সামর্থ্য করে তোলে । তারুণ্য ধরে রাখতেও এর অবদান অপরিসীম । তবে ধনেপাতা রান্নার চেয়ে কাঁচা খেলে উপকার বেশি পাওয়া যায় ।


ধনেপাতা শীতকালীন ঠোঁট ফাটা ঠান্ডা লাগা জ্বর জ্বর ভাব দূর করতে যথেষ্ট অবদান রাখে । ভিটামিন সি সমৃদ্ধ ধনেপাতায় অ্যান্টি অক্সিডেন্ট রয়েছে যা দেহের কাঁটাছেড়া অংশগুলো শুকনোর জন্য অতীব জরুরী । ধনে গাছের বীজের তেলেও নানাবিধ ঔষধি গুন রয়েছে । যেমন ব্যথা নাশক খাবার হজমের সহায়ক ওজন ও খিদেবর্ধক । ধনেপাতার রস দিয়ে দাঁত মাজলে দাঁতের মাড়ি শক্ত হয়, রক্ত পড়া কমে মুখের দুর্গন্ধ দূর হয় । প্রত্যেকদিনের মেনুতে অবশ্যই ধনেপাতা রাখা উচিত । তবে মাত্রাতিরিক্ত ধনেপাতা খাওয়া নিষেধ ।

শীতকাল শুরুর এই সময়টা উপভোগ্য হলেও দেখা দিতে পারে বাড়তি কিছু স্বাস্থ্য সমস্যা । তাই এই সময়টাতে প্রয়োজন কিছুটা বাড়তি সতর্কতা ।

শীতের প্রকোপ থেকে বাঁচতে অবশ্যই গরম জামা কাপড়র সঙ্গে সঙ্গে পা ঢাকা জুতো এবং মজা পড়তে হবে । শীতের মধ্যে খুব প্রয়োজন না হলে বাইরে বেড়ানো একদম ঠিক না । গরম গরম খাবার খেতে হবে । শীতের সময় সেদ্ধ ডিম খুব ভালো কাজ দেয় ।

Read More>>>>>>>>>>

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *